যে ভাবে অ্যান্ড্রোয়েড থেকে মেমরি কার্ড ফরম্যাট করবেন! - TrickBD.Info

যে ভাবে অ্যান্ড্রোয়েড থেকে মেমরি কার্ড ফরম্যাট করবেন!

প্রতিদিন আপনার ফোনের মেমরি কার্ডে কিছু না কিছু তথ্য ডুকানো হচ্ছেই। আর এই ফাইল সংগ্রহ করার কারনে হয়তো কোনো না কোনো ম্যালোয়ার আপনার মোবাইল ফোন জায়গা নিচ্ছেই। এবং খুব তারাতারি আপনার মোবাইল এর স্টোরেজ খুব তারাতারি ভরে যাচ্ছে। এবং ঘন ঘন আপনার মোবাইল এবং আপনার মেমরি কার্ড ম্যালোয়ারে আক্রান্ত হচ্ছে।

এবং ফাইল স্টোরেজ ত্রুটি এবং নিজেকে ওভাররাইট করার প্রবণতা আরো বেশি বেশি মোবাইলে দেখা যেতে পারে। আপনি এটি পরিষ্কারভাবে স্লেট থেকে সঠিকভাবে ফর্ম্যাট করে শুরু করতে পারেন তাতে আপনার মোবাইল এর পক্ষেই ভাল হতে পারে। প্রকৃতপক্ষে, এখনই আপনার এসডি কার্ড ফর্ম্যাট করা এবং তার ভাইরাস ধূর করে আপনার মোবাইল কে সুরিক্ষিত রাখা খুব প্রয়োজন। আর এই কাজগুলি করার আগে আমার এই আর্টিকেল টি পরে ভালভাবে সকল নিয়ম মেনে কাজ করেন। আশাকরি আমার এই আর্টিকেল থেকে আপনারা অনেকটাই উপকৃত হবেন। তো অনেক কথা বললাম এখন মূল আর্টিকেল শুরু করা যাক।

আপনার ডেটা একটি ব্যাকআপ নিন

আপনি যখন আপনার মোবাইল এর সকল ডাটা মুছে ফেলবেন। অতএব আপনার ভসকল ডাঁটা হারাতে চলতেছেন। তাই আমাই আপনাদের সব সময় সকল ডাটা ব্যাকআপ নেওয়ার জন্য বলব। যেনো আপনার আগের ডাটাগুলি খুব সহজেই ফিরে পান!
গুগল আপনার এসডি কার্ড এবং অন্যান্য ফোন ডেটা বিনামুল্যে ব্যাকআপ করবে। আপনার কাছে যদি প্রচুর ছবি এবং ভিডিও থাকে তবে আপনিা গুগল ক্লাউডে ফ্রীতে খুব সহজ ভাবেই আপনার ডাটা ব্যাকআপ রাখতে পারবেন। এবং আপনি তা যেকোনো সময় আক্সেস করতে পারবেন।
বাকি ডেটাগুলির জন্য, আপনার ফোনের সেটিংসে যান যেখানে আপনি “ব্যাকআপ এবং রিসেট” এর অন্যান্য সিটিং দেখতে পাবেন। যা মোবাইল স্যামসাং গ্যালাক্সি, ওপ্পো, ওয়ানপ্লাস এবং মটোরোলা হ্যান্ডসেটের সাথে এরকম মোবাইল উনুযায়ী দেখতে পাবেন। এবং এই সেটিং গুলি খব সহজ।
আবার অন্যান্য মোবাইল ব্রান্ডদের একটু অন্য রকম থাকতে পারে। যেমন এইচটিসি ফোনগুলিতে একটি “এইচটিসি ব্যাকআপ” অ্যাপ রয়েছে। তেমনি অন্যসব মোবাইল ব্রান্ডদের অন্য রকম থাকতে পারে। তাছারা ব্যাকআপ নেওয়ার আগে আপনিম আগে ভালবাবে সেটিংগুলি চেক করে নিতে পারেন। এতে আমি সবচেয়ে ভাল বুদ্ধিমানের কাজ আমি মনে করতে পারি।

এসডি কার্ড ফর্ম্যাট করা

এবার মনে হয় আমি মুল স্থরে এসে গেছি। এবার আমি বলব ফরম্যাট করার আগে আপনি যা যা করবেন। তা আমি আপনাদের সব স্টেপ বায় স্টেপ ভাবে বলে দিতেছি।
প্রথমে আপনি আপনার সিম কার্ড স্লট বেড় করে ফেলুন। তারপর সিম টা খুলে নিন। কেননা- সবারই সিমে কিছু না কিছু প্রয়োজনীয় নাম্বার থাকে। যখন আপনি ফরম্যাট করবেন। তখন সকল ডাটা এর সাথে আপনার পারসনাল সব নাম্বার অ চলে যেতে পারে। যদিও সব মোবাইলে থেকে যায় না।
এবং আপনি মোবাইল ফরম্যাট করে ফেলুন। ও কিছু সময় অপেক্ষা করুন। কেননা- মোবাইল আর সকল ডাটা মুছতে কিছুটা সময় নিবে, এতে হতাস হওয়ার কিছু নেই। যতো দামি ভাল ব্রান্ড এর মোবাইল হোক না কেনো সময় নিবেই।

ক্ষতিগ্রস্থ এসডি কার্ডটি ব্যবহার করতে পারি?

হ্যা, আপনি এই প্রবলেম কার্ডটই ব্যবহার করতে পারবেন। আর এই কার্ডগুলি আমিও ব্যবহার করি। তবে যতক্ষণ না আপনার এসডি কার্ডটি ফোন বা কম্পিউটারে পঠনযোগ্য হয় ততক্ষণ এটি নিয়মিত সতর্কতার সাথে ব্যবহার করা যেতে পারে। তবে আপনার ক্ষতিগ্রস্থ এসডি কার্ডের ডেটা ব্যাকআপ নেওয়া এবং এটির সাথে অন্যটি প্রতিস্থাপন করা ভাল হবে আমার ব্যাক্তিগত মতামতে বললাম।

উপসংহার

যদিও এসডি কার্ডগুলি এত ব্যয়বহুল নয়। অল্প কিছু টাকা হলেই আপনি বাজার থেকে একটা এসডি কার্ড কিনতে পারবেন। আমি মনে করি মেমরি কার্ডে যদি সমস্যাই হয়ে জায় তাহলে আপনি নতুন একটা মেমরি কার্ড কিনে ব্যবহার করবেন। আশাকরি আমার আর্টিকেলটি আপনাদের ভাল লেগেছে। যদি ভাল লাগে তাহলে আপনার বন্ধুদের মাঝে আমার আর্টিকেলটি শেয়ার করুন। আর যদি ভাল না লাগে। তাহলে কেনোভাল লাগেনাই তাও আমাকে জানবেন। ধন্যবাদ সময় নিয়ে পরার জন্য।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *